রোডশোয় জনতার ভালোবাসায় দেরি হয়ে গেলো, মনোনয়ন জমা দিতে পারলোনা কেজরিওয়াল:

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী সাংবাদিগকে জানায় " আমাকে বলা হয়েছিল জমা দেয়ার জন্যে, কিন্তু কি করে এই জনসমুদ্রকে ছেড়ে যাব? আমি কাল মনোনয়ন জমা দেব।

0
রোডশোয় জনতার ভালোবাসায় দেরি হয়ে গেলো, মনোনয়ন জমা দিতে পারলোনা কেজরিওয়াল: the policy times
546 Views

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল বিধানসভা নির্বাচনের মনোনয়ন জমা দেয়ার জন্যে বেরিয়েছিলেন।কিন্তু তার আত্মপ্রিয় জনসমাজ তার জন্যে লোকালয়ের রাস্তায় সমুদ্রের সমাবেশে বেরিয়েছিল। 

রাস্তা অতিরিক্ত ভাবে জন সমুদ্রে ভোরে যাওয়ার কারণে সময়মতো কেজরিওয়াল  পৌঁছাতে পারেনি। কাল মঙ্গলবার জমা দেয়ার শেষ তারিখ। কেজরিওয়াল জানিয়েছেন তিনি সেইদিনই জমা দেবেন। 

মুখ্যমন্ত্রী কেজরিওয়ালকে দুপুর তিনটের মধ্যে নামোল্লেখন নির্বাচন কমিশনারের দফতরে জমা দিতে হতো, কিন্তু সঠিক সময়নিয়ে পৌঁছাতে পারেননি।

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী সাংবাদিগকে জানায় ” আমাকে বলা হয়েছিল জমা দেয়ার জন্যে, কিন্তু কি করে এই জনসমুদ্রকে ছেড়ে যাব? আমি কাল মনোনয়ন জমা দেব।

এই রোডশো শুরু হয়েছিল বাল্মীকি মন্দির থেকে। আর এটার শেষপ্রান্ত ছিল নির্বাচনী অফিস।বাল্মীকি মন্দির থেকে বেরিয়ে ধীরে ধীরে সকল জনসাধারণকে নিয়ে এগোতে এগোতে কনট প্লেসে এক বৃহৎ জনসমুদ্রের সমাগম দেখা যায় কেজরিওয়ালের সমর্থনে। যার ফলেই সময়মতো গন্তব্যস্থলে পৌঁছাতে পারেননি মুখ্যমন্ত্রী। 

এই রোডশোয়ার যে প্রকৃত ছবি ছিল তা ভাষায় প্রকাশ করা অসম্ভব। কিন্তু এইটুকু বলা যায় জনমানবের সমুদ্রের মাজখানে কেজরিওয়ালের গাড়ি মালগাড়ির মতো ধুকে ধুকে চলছিল। 


এরইমাঝে মুগ্ধ স্লোগান ভেসে আসছিলো “কেজরিওয়াল মেরে হিরো, বিজলি বিল মেরে জিরো”

                                            “আচ্ছে বীতে পাঁচ সাল, লাগে রাহ কেজরিওয়াল” 


 

Summary
Article Name
রোডশোয় জনতার ভালোবাসায় দেরি হয়ে গেলো, মনোনয়ন জমা দিতে পারলোনা কেজরিওয়াল:
Description
দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী সাংবাদিগকে জানায় " আমাকে বলা হয়েছিল জমা দেয়ার জন্যে, কিন্তু কি করে এই জনসমুদ্রকে ছেড়ে যাব? আমি কাল মনোনয়ন জমা দেব।
Author
Publisher Name
The Policy Times
Publisher Logo