করোনা সংক্রমণে রাশ টানতে কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা নবান্নের, ৯ জুলাই বিকেল ৫টা থেকে সমস্ত কনটেনমেন্ট জোনে ফের লকডাউন জারি

অনির্দিষ্টকালের জন্য জারি থাকবে লকডাউন- মঙ্গলবার বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণের উর্ধ্বমূখী গ্রাফে রাশ টানতেই কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করল নবান্ন।

0
করোনা সংক্রমণে রাশ টানতে কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা নবান্নের, ৯ জুলাই বিকেল ৫টা থেকে সমস্ত কনটেনমেন্ট জোনে ফের লকডাউন জারি. THE POLICY TIMES

করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে ফের কমপ্লিট লকডাউনের বজ্র আঁটুনি রাজ্যে। আগামী  বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই বিকেল ৫টা থেকে শুধুমাত্র কনটেনমেন্ট জোনে ফের লকডাউন কার্যকর হবে। তবে, বাফার জোনগুলিকেও কনটেনমেন্ট জোনের অন্তর্ভূক্ত করা হচ্ছে। অনির্দিষ্টকালের জন্য জারি থাকবে লকডাউন- মঙ্গলবার বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণের উর্ধ্বমূখী গ্রাফে রাশ টানতেই কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করল নবান্ন।

মঙ্গলবার, এই মর্মে নির্দেশিকা জারি করেছে নবান্ন। এ দিনের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে জরুরি নয় এমন যে কোনো পরিষেবা বন্ধ থাকবে লকডাউনে থাকা অঞ্চলে। তা ছাড়া যে কোনো ধরনের জমায়েতে কড়া নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। জরুরি অত্যাবশ্যকীয় পণ্য ছাড়া বন্ধ থাকবে সমস্ত দোকান-বাজার, কারখানা, বাণিজ্যিক গতিবিধি। গণপরিবহণেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে ওই সব এলাকায়। এদিন নবান্নের তরফে স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানান, “বৃহস্পতিবার থেকে কনটেনমেন্ট জোনে লকডাউন কার্যকর হবে। তবে আগের মতো তিনটি জোনে ভাগ করে নয়, এবার শুধু কনটেনমেন্ট জোনেই (বাফার জোন-সহ) লকডাউন চলবে”। এছাড়াও, কনটেনমেন্ট জোন থেকে কেউ বাইরে বেরিয়ে সরকারি বা বেসরকারি অফিসে কাজ করতে যেতে পারবেন না। এই মর্মে স্বরাষ্ট্রসচিবের জারি করা বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে,  এলাকা গুলিতে জরুরি পরিষেবা ছাড়া সমস্ত কাজ বন্ধ থাকবে যদি কোনো সরকারি এবং বেসরকারি অফিস থাকে তাও বন্ধ থাকবে। কনটেনমেন্ট জোনে যে সব সরকারি ও বেসরকারী কর্মচারী থাকেন, তাঁদের অফিস হাজিরা থেকে অব্যাহতি দেওয়া যেতে পারে।


তাঁদের যা দরকার স্থানীয় প্রশাসন তা বাড়িতে পৌঁছে দেবে। স্থানীয় প্রশাসন চেষ্টা করবে কনটেনমেন্ট জোনে হোম ডেলিভারির ব্যবস্থা করার। এ ব্যাপারে স্থানীয় প্রশাসনের জন্য আলোচনা হয়েছে। কলকাতার ক্ষেত্রে কোন কোন এলাকা কন্টেইনমেন্ট জোন হবে তা আলোচনা করে ঠিক করবে কলকাতা পুরসভা এবং কলকাতা পুলিশ। জেলার ক্ষেত্রে জেলাশাসক ও পুলিশ সুপার বা পুলিশ কমিশনার বসে সিদ্ধান্ত নেবেন।

তবে কলকাতা পুরসভা সূত্রে খবর, এ দিন কলকাতায় কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে। এলাকা চিহ্নিতকরণের কাজ শুরু হয়েছে। জানা গিয়েছে, ১৭ থেকে বেড়ে কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা হয়েছে ২৮। পাশাপাশি উত্তর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনাতেও কড়া হয়েছে পুলিশ-প্রশাসন। রাজ্য সরকারের এগিয়ে বাংলা ওয়েবসাইটে কনটেনমেন্ট জোনের বিস্তারিত তালিকা রয়েছে।

Summary
Article Name
করোনা সংক্রমণে রাশ টানতে কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা নবান্নের, ৯ জুলাই বিকেল ৫টা থেকে সমস্ত কনটেনমেন্ট জোনে ফের লকডাউন জারি
Description
অনির্দিষ্টকালের জন্য জারি থাকবে লকডাউন- মঙ্গলবার বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণের উর্ধ্বমূখী গ্রাফে রাশ টানতেই কড়া লকডাউনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করল নবান্ন।
Author
Publisher Name
THE POLICY TIMES
Publisher Logo